শীর্ষ সংবাদ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site
Home / ফেঞ্চুগঞ্জ / ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ দুটি ধারায় বিভক্ত!

ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ দুটি ধারায় বিভক্ত!

জুয়েল খাঁন: সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ দুটি ধারায় বিভক্ত হয়ে পড়েছে। ফেঞ্চুগঞ্জে সভা-পাল্টাসভা, শোকসভা-পাল্টা শোকসভা আয়োজনের মধ্য দিয়ে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সম্পাদকের নেতৃত্বে দুটি ধারায় বিভক্ত হয়ে পড়েছে। এক পক্ষের সভাপতি বলছেন, দলে কাউয়া আর ফার্মের মুরগির কদর বেশি। উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বলছেন, বসন্তের কোকিলরা কু কু করছে। সাংগঠনিক সূত্রে জানা যায়, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার ৫ ইউনিয়ন, সিংহভাগ ওয়ার্ডের তৃণমূলের নেতাকর্মীরা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শওকত আলীর সঙ্গে রয়েছেন এমন দাবি ইউনিয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের।

সভাপতি শওকত আলীর নেতৃত্বাধীন বলয় স্থানীয় সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরীর আশীর্বাদপুষ্ট হিসেবে পরিচিত।

দলের সাধারণ সম্পাদক আবদুল বাছিত টুটুলের নেতৃত্বে রয়েছেন দলের পদবিধারী সাবেক নেতারা। সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান নূরুল ইসলাম, সাবেক উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এ আর সেলিম, সাবেক আওয়ামী লীগ নেতা রাজু আহমদ রাজা, শাহ মুজিবুর রহমান জকন, শিব্বির আহমদ, ফেঞ্চুগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের সাবেক ভিপি এবিএম কিররিয়া ময়নূল, জিএস আবদুল মতিনসহ উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফারহান সাদিক রয়েছেন আবদুল বাছিত টুটুলের সঙ্গে। টুটুলের নেতৃত্বাধীন বলয়টি কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিছবাহ উদ্দিন সিরাজের বলয় হিসেবে নেতাকর্মীদের কাছে পরিচিত।

৭ মে ফেঞ্চুগঞ্জে প্রয়াত আওয়ামী লীগের ৬ নেতার স্মরণসভায় আয়োজন করে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল বাছিত টুটুলের নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগ। সেই স্মরণসভায় প্রধান অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিছবাহ উদ্দিন সিরাজ। সেই স্মরণসভাকে কেন্দ্র করে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শওকত আলীর নেতৃত্বাধীন বিভিন্ন ইউনিয়ন, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা স্মরণসভার কাছাকাছি জায়গায় অবস্থান নিলে দুটি বলয়ের নেতাকর্মীদের মাঝে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এদিকে আজ বিকালে ফেঞ্চুগঞ্জ পূর্ববাজার এলাকায় শওকত আলীর নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগের উদ্যোগে আওয়ামী লীগের সদ্যপ্রয়াত নেতাদের স্মরণে শোকসভার আয়োজন করা হয়েছে। শোকসভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী। শোকসভার আড়ালে মূলত দুটি বলয়ের নেতাকর্মীরা তাদের পক্ষের নেতাকর্মীদের নিয়ে শোডাউন চেষ্টায় রয়েছেন।

ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি জয়নাল আবেদীন বলেন, আমরা দলের দুর্দিনে ছিলাম এখন দল ক্ষমতায় থাকার পরও আমরা অবহেলিত-উপেক্ষিত। দলে কাউয়া আর ফার্মের মুরগিদের কদর বেশি; তাই আমরা ত্যাগীরা একত্রিত হচ্ছি। উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল বাছিত টুটুল বলেন, দলের ত্যাগী ও পরীক্ষিত নেতাকর্মীদের নিয়ে মাঠে রয়েছি। আমাদের সঙ্গে কোনো হাইব্রিড নেতা নেই। উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শওকত আলী বলেন, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সুসংগঠিত ও তৃণমূল পর্যায়ে খুবই শক্তিশালী রয়েছে। এখন যারা মাঠ গরম করা চেষ্টা করছেন তারা এতদিন কোথায় ছিলেন? নির্বাচনী বাতাস বইতে না বইতে বসন্তের কোকিলরা কু কু করছে। তৃণমূলের নেতাকর্মীরা বসন্তের কোকিলদের ডাকে সাড়া দেবে না।

যুগান্তর অবলম্বনে/১৭

আপনার মন্তব্য

Check Also

কুয়েত আ. লীগের কমিটিতে ফেঞ্চুগঞ্জের ফুয়াদ আহমদ

রুমেল আহমদ, ফেঞ্চুগঞ্জ : বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কুয়েত কেন্দ্রীয় শাখার আইন-বিষয়ক সম্পাদক নির্বাচিত হলেন ফুয়াদ আহমদ। কুয়েত …