শীর্ষ সংবাদ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site
Home / আলোচিত -সমালোচিত / সামান্য বৃষ্টিতে শাহজালাল ফার্টিলাইজার কোম্পানি লিঃ (এস এফ সি এল ) এর নবনির্মিত আবাসিক ভবনের ভিতর পানি।।

সামান্য বৃষ্টিতে শাহজালাল ফার্টিলাইজার কোম্পানি লিঃ (এস এফ সি এল ) এর নবনির্মিত আবাসিক ভবনের ভিতর পানি।।

বিশেষ প্রতিনিধিঃ ফেঞ্চুগঞ্জের শাহজালাল সারকারখানার নবনির্মিত বহুতলবিশিষ্ট আবাসিক ভবনগুলোতে সামান্য বৃষ্টিতে ঢুকে পরছে পানি।

গত কয়েকদিনের হওয়া হালকা বর্ষনে ভবনের প্রতি রুমে দেখা যায় দেয়াল চুইয়ে ফ্লোরে পানি জমে যাচ্ছে।নবনির্মিত প্রতিটি ভবনেই নিম্নমানের কাজের কারনে পানি জমাট হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে বিভিন্ন কন্সট্রাকশন কোম্পানির বিরুদ্ধে।সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় দেয়াল চুইয়ে গড়িয়ে পড়া পানিতে বসবাসকারী কর্মচারীদের বিছানা,কাথা,বালিশ ভিজে জবুথবু অবস্থা।নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কর্মচারী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন- নিম্নমানের কাজ করে তৈরী করা এইসব ভবনগুলো থেকে ফায়দা লোভি অসাধু ব্যাবসায়ীরা কাজ করে দিয়েই খালাস।এখন রুমের মধ্যে আমাদের শীতের সময় পানিতে সাতার কাটতে হচ্ছে।তিনি আরো বলেন-আমাদের দেখার কেউ নেই,কোটি কোটি টাকা ব্যায় করে নির্মিত এই ভবনগুলোকে দেখে আসার অনুরোধ জানান কতৃপক্ষকে।
এদিকে এনিয়ে যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে উঠেছে প্রতিবাদী ঝড়।সবাই বিভিন্ন পোস্ট করে এর প্রতিকার চাইছেন।যে কন্সট্রাকশন কোম্পানিগুলো নির্মানে কাজ করেছে তাদের শাস্তির দাবীও করেছেন অনেকে।
উল্ললেখ্য যে-
দৈনিক ১৭৬০ টন সার উৎপাদনের লক্ষে প্রায় ৬ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে ফেঞ্চুগঞ্জের পুরাতন সারকারখানার পাশে ১৬২ একর জায়গার উপর স্থাপন করা হয় শাহজালাল ফার্টিলাইজার ফ্যাক্টরি কোম্পানী লিমিটেড নামের এই শিল্প প্রতিষ্ঠান।মূল কারখানার জন্য ৫২ একর এবং বাকী জায়গায় গড়ে উঠছে আবাসিকভবন, স্কুল-কলেজ ও অন্যান্য স্থাপনা। ২০১২ সালের ২৪ মার্চ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওই সারকারখানার নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। নির্ধারিত সময়ের মধ্যেই সারকারখানাটির নির্মাণ কাজ সম্পন œকরে নির্মাতা প্রতিষ্ঠান চায়নার মেসার্স কমপ্লান্ট। ন্যাদারলেন্ড ও আমেরিকার প্রযুক্তিতে তৈরী শাহজালাল সারকারখানার ডিজাইন প্রতিষ্ঠান ছিল চায়নার মেসার্স চেংদা ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানী লিমিটেড। শাহজালাল সারকারখানা নির্মাণে ব্যয় হওয়া অর্থ বার্ষিক ২.০% সুদে চীনকে বাংলাদেশ সরকারের ইআরডি বিভাগ ২০ বছরে ৩০টি কিস্তিতে পরিশোধ করবে। তন্মধ্যে চুক্তি অনুযায়ী প্রথম ৫ বছর থাকবে গ্রেস পিরিয়ড। ২০১৫ সালের ১০ নভেম্বর শাহজালাল সারকারখানায় পরীক্ষামুলক উৎপাদন শুরু হয়।
ছবিঃ চিফ ফটগ্রাফার।

আপনার মন্তব্য

Check Also

উপজেলা চেয়ারম্যান এর মধ্যস্থতায় টানা ২৪দিনের কর্মবিরতির পর কাজে যোগদান করল বিক্ষুব্ধ চা শ্রমিকরা

এমরান আহমেদ :::::আজ ০২ এপ্রিল  রোজ সোমবার ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার মোমিনছড়া চা বাগানের আন্দোলনরত শ্রমিকদেরকে নিয়ে …